× ই-পেপার প্রচ্ছদ বাংলাদেশ রাজনীতি দেশজুড়ে বিশ্বজুড়ে বাণিজ্য খেলা বিনোদন মতামত চাকরি ফিচার চট্টগ্রাম ভিডিও সকল বিভাগ ছবি ভিডিও লেখক আর্কাইভ কনভার্টার

স্বামীর খোঁজ না পেয়ে ফিরে গেলেন ভারতীয় বধূ

পঞ্চগড় প্রতিবেদক

প্রকাশ : ০২ ডিসেম্বর ২০২৩ ২১:১১ পিএম

আপডেট : ০২ ডিসেম্বর ২০২৩ ২২:১৪ পিএম

স্বামীর খোঁজে ভারত থেকে বাংলাদেশের পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় এসে হতাশ হয়ে ফিরে যেতে হলো এক ভারতীয় নারীকে।  প্রবা ফটো

স্বামীর খোঁজে ভারত থেকে বাংলাদেশের পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় এসে হতাশ হয়ে ফিরে যেতে হলো এক ভারতীয় নারীকে। প্রবা ফটো

স্বামীর খোঁজে ভারত থেকে বাংলাদেশের পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় এসে হতাশ হয়ে ফিরে যেতে হলো এক ভারতীয় নারীকে। তার নাম রিয়া বালা, বাড়ি ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের বর্ধমান জেলার অম্বিকা কালনা এলাকায়। যার খোঁজে এসেছিলেন, তার নাম বিটু রায়।

বিটুর পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে রিয়ার পরিচয় হয় তেঁতুলিয়া উপজেলার দেবনগর ইউনিয়নের শিবচন্ডী এলাকার অখিল চন্দ্র রায়ের ছেলে বিটু রায়ের সঙ্গে। এক পর্যায়ে বিটু ভারতে গিয়ে তার সঙ্গে দেখা করে। ২১ সেপ্টেম্বর জলপাইগুড়ি জেলার রাজগঞ্জ থানার শিকারপুর এলাকায় পিসির বাড়িতে রিয়াকে বিয়ে করে বিটু। ওই এলাকায় বিটু-রিয়া দম্পতি এক মাস বাড়িভাড়া নিয়েও থাকেন। এক পর্যায়ে বাংলাদেশে ফিরে আসে বিটু। দেশে ফিরে রিয়ার সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ করে দেয়। এমনকি বিয়ের বিষয়টিও অস্বীকার করতে থাকেন।



স্বামীর খোঁজে ২৯ নভেম্বর শিবচন্ডী এলাকায় বিটুর বাড়িতে আসেন রিয়া বালা। তার আসার খবর পেয়ে বাড়ি ছেড়ে পালায় বিটু। শুক্রবার স্বামীর বাড়িতে নির্যাতনের শিকার এবং নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন বলে তেঁতুলিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে ফোন করে সহযোগিতা চান ওই তরুণী। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা স্থানীয় নারী ইউপি সদস্যদের সহযোগিতায় তাকে উদ্ধার করে তেঁতুলিয়া থানার নারী ও শিশু সেলে থাকার ব্যবস্থা করেন। এ সময় বিটুর বাবা অখিল চন্দ্রও সঙ্গে ছিলেন। তিনি ছেলে ফিরে এলে তাকে নিয়ে ভারতে গিয়ে বিষয়টি সমাধানের আশ্বাস দেন। 

রিয়া দেশে ফিরে যেতে চাইলে পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করে তেঁতুলিয়া উপজেলা প্রশাসন। শনিবার (২ ডিসেম্বর) রিয়া বালাকে আইনি প্রক্রিয়া শেষে তেঁতুলিয়া উপজেলার বাংলাবান্ধা ও ভারতের ফুলবাড়ী শূন্যরেখা দিয়ে দেশে পাঠানো হয়।

বিটুর বাবা অখিল চন্দ্র রায় বলেন, আমার ছেলে দুর্গাপূজায় ভারতে গিয়ে ১৫ দিন পিসির বাড়িতে ছিল। গত কয়েক দিন আগে এক মেয়ে ভারত থেকে আমাদের বাড়িতে আসে। সে নিজেকে আমার ছেলের বউ হিসেবে দাবি করে। আমার ছেলে ভারতে গিয়ে বিয়ে করেছে নাকি করেনি সেটা জানায়নি। মেয়েটি ভারতীয় বলে তাকে সম্মান করেছি। কিন্তু তাকে আমার ছেলের বউ হিসেবে মেনে নিতে পারব না।

তেঁতুলিয়া উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সুলতানা রাজিয়া বলেন, ছেলেটি পালিয়ে থাকায় বিষয়টি সমাধান করা সম্ভব হয়নি। তবে ছেলের বাবা ছেলে ফিরে এলে তাকে নিয়ে ভারতের যাওয়ার আশ্বাস দেন। 

তেঁতুলিয়া উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা ফজলে রাব্বি বলেন, রিয়া বালা বাংলাদেশে এসে তার স্বামীর বাড়ি যায়। তার স্বামী আগেই পালিয়ে যান। রিয়ার শ্বশুর অখিল পুত্রবধূকে মেনে নিচ্ছিলেন না। তিনি আমাদের সাহায্য চাইলে তাকে সহায়তা করি। তার পরিবারের সঙ্গে কথা বলে তাকে ভারতে ফেরত পাঠানোর ব্যবস্থা করি।

শেয়ার করুন-

মন্তব্য করুন

Protidiner Bangladesh

সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি

প্রকাশক : কাউসার আহমেদ অপু

রংধনু কর্পোরেট, ক- ২৭১ (১০ম তলা) ব্লক-সি, প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড) ঢাকা -১২২৯

যোগাযোগ

প্রধান কার্যালয়: +৮৮০৯৬১১৬৭৭৬৯৬ । ই-মেইল: protidinerbangladesh.pb@gmail.com

বিজ্ঞাপন (প্রিন্ট): +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ । ই-মেইল: pbad2022@gmail.com

বিজ্ঞাপন (অনলাইন): +৮৮০১৭৯৯৪৪৯৫৫৯ । ই-মেইল: pbonlinead@gmail.com

সার্কুলেশন: +৮৮০১৭১২০৩৩৭১৫ । ই-মেইল: pbcirculation@gmail.com

বিজ্ঞাপন মূল্য তালিকা