× ই-পেপার প্রচ্ছদ বাংলাদেশ রাজনীতি দেশজুড়ে বিশ্বজুড়ে বাণিজ্য খেলা বিনোদন মতামত চাকরি ফিচার চট্টগ্রাম ভিডিও সকল বিভাগ ছবি ভিডিও লেখক আর্কাইভ কনভার্টার

বিএনপি নেতার বাড়িতে ভাঙচুর-নির্যাতনের অভিযোগ

নারায়ণগঞ্জ প্রতিবেদক

প্রকাশ : ০২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ০১:১৯ এএম

আপডেট : ০২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ১০:৩৮ এএম

সংগৃহীত ছবি

সংগৃহীত ছবি

নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে অভিযানের নামে বিএনপি নেতার বাড়িতে ঢুকে রুমের তালা ভেঙে আসবাবপত্র ভাঙচুর ও নারীদের সঙ্গে অশালীন আচরণের অভিযোগ উঠেছে পুলিশের বিরুদ্ধে। পুলিশ বলছে, মাদক উদ্ধারে তারা ওই বাড়িতে অভিযান চালিয়েছে। বাড়িটি বিএনপির নেতার কি না তা তাদের জানা নেই। 

বৃহস্পতিবার (১ ফেব্রুয়ারি) বিকালে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক আকবর হোসেনের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। আকবর হোসেনের অভিযোগ, পুলিশ তার বাড়িতে ঢুকে মেইন গেট লাগিয়ে দিয়ে তার ভাতিজি ও ভাতিজার রুমের তালা ভেঙে তল্লাশির নামে বাড়ির ভেতরে তছনছ করেছে।

আকবর হোসেন বলেন, ‘আমি সিদ্ধিরগঞ্জ থানা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক পদে দায়িত্ব পালন করছি। বিরোধী দলের রাজনীতির সাথে জড়িত থাকায় কিছুদিন পর পরই পুলিশ ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা আমার বাড়িতে অভিযান চালিয়ে হয়রানি করা সহ ঘরের আসবাবপত্র ভাঙচুর করে। আজ বিকেলে আমি বাড়ির বাইরে থাকা অবস্থায় সিদ্ধিরগঞ্জ থানার সাব ইন্সপেক্টর কামরুল ইসলামের নেতৃত্বে পুলিশ সদস্যরা আমার বাড়িতে ঢুকে মেইন গেইট বন্ধ করে দিয়ে বিভিন্ন রুমের তালা ভেঙ্গে করে ঘরের আসবাবপত্র ভাঙচুর করে। এ সময় আমার স্ত্রী ও ভাতিজা-ভাতিজি বাধা দিলে তাদের চুল কেটে ফেলার হুমকি দেয়। হৈ-চৈ শুনে স্থানীয়রা এগিয়ে এসে অভিযানের নামে হয়রানির বিষয়ে জানতে চাইলে পুলিশের আরও টিম এনে স্থানীয়দেরকে লাঠিপেটা করে।’

তিনি আরও বলেন, ‘এর আগে গত ৩০ জানুয়ারি কেন্দ্র ঘোষিত বিএনপির কালো পতাকা মিছিলের পূর্বে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর একটি টিম আমার বাড়িতে আসে। আমাকে খোঁজাখুজি করে না পেয়ে আমার স্ত্রীকে তুলে নিয়ে যেতে চায়। এসময় ৩ লাখ ৭০ হাজার টাকা দিলে আমার স্ত্রীকে বাসায় রেখে যায়।’

এ বিষয়ে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার সাব ইন্সপেক্টর কামরুল ইসলাম বলেন, ‘আমাদের কাছে তথ্য ছিল এই বাড়িতে মাদক বিক্রি করা হয়। তথ্যের ভিত্তিতে আমরা অভিযান পরিচালনা করেছি। কোনো কিছু পাওয়া না যাওয়ায় কাউকে গ্রেপ্তার করা হয়নি। আলী আকবর বিএনপি করেন কি না তা জানা নাই।’

তিনি আরও বলেন, ‘ওই বাড়িতে প্রবেশের পর থেকেই নারীরা চিৎকার চেঁচামেচি শুরু করে, এক পর্যায়ে বাইরে থেকে কয়েকজন লোক এসে আমাদের সাথে খারাপ আচরণ করলে পুলিশের আরও ২টি টিমকে খবর দেই। এ লোকজনদের মধ্যে ওই বাড়ির মালিক আলী আকবরও ছিলেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘অতিরিক্ত পুলিশ এলে ওই ব্যক্তি পালিয়ে যায় এবং কোনো মাদক না পাওয়ায় আমরা ওখান থেকে চলে আসি।’ আসবাবপত্র ভাঙচুরের কথা অস্বীকার করে এই পুলিশ সদস্য বলেন, ‘এটা চরম মিথ্যা কথা। এমন কোনও ঘটনাই ঘটেনি ওখানে।’

এ বিষয়ে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ওসি মোহাম্মদ আবু বক্কর সিদ্দিক বলেন, এ ধরনের কোনো অভিযোগ নাই। তারা (পুলিশ) অভিযানে গিয়েছিল, তাদের সাথে অনেক মানুষ ডিস্টার্ব করছে। এটুকুই জানি, এর বেশি অতিরিক্ত কোনো কিছুই নেই।

শেয়ার করুন-

মন্তব্য করুন

Protidiner Bangladesh

সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি

প্রকাশক : কাউসার আহমেদ অপু

রংধনু কর্পোরেট, ক- ২৭১ (১০ম তলা) ব্লক-সি, প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড) ঢাকা -১২২৯

যোগাযোগ

প্রধান কার্যালয়: +৮৮০৯৬১১৬৭৭৬৯৬ । ই-মেইল: protidinerbangladesh.pb@gmail.com

বিজ্ঞাপন (প্রিন্ট): +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ । ই-মেইল: pbad2022@gmail.com

বিজ্ঞাপন (অনলাইন): +৮৮০১৭৯৯৪৪৯৫৫৯ । ই-মেইল: pbonlinead@gmail.com

সার্কুলেশন: +৮৮০১৭১২০৩৩৭১৫ । ই-মেইল: pbcirculation@gmail.com

বিজ্ঞাপন মূল্য তালিকা