× ই-পেপার প্রচ্ছদ বাংলাদেশ রাজনীতি দেশজুড়ে বিশ্বজুড়ে বাণিজ্য খেলা বিনোদন মতামত চাকরি ফিচার চট্টগ্রাম ভিডিও সকল বিভাগ ছবি ভিডিও লেখক আর্কাইভ কনভার্টার

টিকটকে প্রেম, শিবচরে এসে বিয়ে করলেন ইন্দোনেশীয় তরুণী

শিবচর (মাদারীপুর) প্রতিবেদক

প্রকাশ : ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ১৭:৫৩ পিএম

আপডেট : ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ ১৭:৫৮ পিএম

বাংলাদেশের তরুণ শামীম মাদবর ও ইন্দোনেশীয় তরুণী ইফহা। প্রবা ফটো

বাংলাদেশের তরুণ শামীম মাদবর ও ইন্দোনেশীয় তরুণী ইফহা। প্রবা ফটো

ইন্দোনেশীয় তরুণী ইফহা। কাজের সুবাদে এই তরুণীর সঙ্গে সিঙ্গাপুরে পরিচয় হয় বাংলাদেশের মাদারীপুরের শিবচরের তরুণ শামীম মাদবরের সঙ্গে। তরুণীর সঙ্গে সিঙ্গাপুরে থাকা অবস্থাতেই প্রথমে টিকটকের মাধ্যমে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। পরস্পরের মধ্যে বোঝাপড়া, ভালো লাগা আরও গভীর হতে থাকে। এভাবেই কেটে যায় গত দুবছর। অবশেষে প্রেমের সম্পর্ক গড়ায় পরিণয়ে। তাই ইন্দোনেশীয় তরুণী বর শামীমকে বিয়ে করতে চলে আসেন বাংলাদেশে শামীমের গ্রামের বাড়িতে।

পরস্পরের ওপর আস্থা রেখে শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) মাদারীপুরের শিবচর উপজেলার কুতুবপুর ইউনিয়নের বড় কেশবপুর গ্রামে জাঁকজমক আয়োজনে শামীম-ইফহার বিয়ে সম্পন্ন হয়। 

জানা গেছে, ২০১৮ সালে কেশবপুর গ্রামের লালমিয়া মাদবরের তৃতীয় সন্তান সিঙ্গাপুর যান ভাগ্য বদলাতে। সেখানে টিকটকের মাধ্যমে পরিচয় হয় ইন্দোনেশিয়ার তরুনী ইফহার সঙ্গে। মা বাবা ইন্দোনেশিয়ায় বসবাস করলেও ইফহা সিঙ্গাপুরে অনলাইনে কসমেটিকসের সফল ব্যবসায়ী। গত দুবছর তাদের মধ্যে গভীর প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠলে তারা বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন। ইউটিউবে বাংলাদেশে বিয়ের ধরন পছন্দ হওয়ায়, তারা বাংলাদেশে বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন। উভয় পরিবারই বিয়ের শুরুতে অসম্মতি জানালেও, তাদের প্রেমের টানের কাছে হেরে যান। বিয়ের জন্য গত ৩০ জানুয়ারি সিঙ্গাপুর থেকে দেশে আসেন শামীম মাদবর। আর গত ১৭ ফেব্রুয়ারি বাংলাদেশে আসেন ইন্দোনেশীয় তরুণী ইফহা। শামীম মাদবরের পরিবার স্বানন্দে গ্রহণ করেন ওই তরুণীকে। গত বৃহস্পতিবার গায়ে হলুদ ও শুক্রবার শামীমের বাড়িতে বিয়ের অনুষ্ঠান জাঁকজমকভাবে সম্পন্ন হয়। এ দিকে বিদেশী তরুণীর বিয়ের অনুষ্ঠান দেখতে ভিড় জমায় এলাকাবাসী। বৌভাত অনুষ্ঠানে প্রায় ৮ শতাধিক মানুষের খাবার আয়োজন করা হয়। বিদেশী মেয়ের সঙ্গে বিয়ের ঘটনায় এলাকায় বেশ চাঞ্চল্য তৈরি হয়েছে। মেয়েকে দেখতে দূর-দূরান্ত থেকে লোকজন এসে ভিড় করেছে শামীমের বাড়িতে।

সালমা আক্তার নামে শামীম মাদবরের স্বজন বলেন, ‘ইফহা ইন্দোনেশীয় তরুণী হলেও কাজের জন্য সিঙ্গাপুরে থাকেন। তবে ওর পরিবার ইন্দোনেশীয়া থাকেন। আমাদের শামীম সিঙ্গাপুর থাকেন প্রায় ৬ বছর ধরে। ওখানে থাকা অবস্থাতেই ইফহার সঙ্গে শামীমের পরিচয়। আমরা ফোনেই মেয়ের সঙ্গে বিভিন্ন সময়ে কথা বলেছি। মেয়ে খুবই ভালো।’ 

শামীম মাদবরের বাবা লাল মিয়া মাদবর বলেন, ‘বিদেশী মেয়েকে আমার ছেলে পছন্দ করেছে। মেয়েও ছেলেকে পছন্দ করে। আমরা ওই মেয়ের পরিবারের সঙ্গে কথা বলেছি। তারাও বিয়েতে রাজি হয়েছেন। শামীম আসার কিছুদিন পর মেয়েও বাড়িতে আসে। শুক্রবার শামীম ও আমার ছোট ছেলে সুমনের একত্রে বিয়ে দিয়েছি। একসঙ্গে অনুষ্ঠান করেছি। সবাই আনন্দিত। এখন ওরা ভালো থাকুক এই দোয়া করি।’

শামীম বলেন, ‘ইফহা ইন্দোনেশীয়ান তরুণী। তবে সিঙ্গাপুর থাকে। ওখানে থাকা অবস্থাতে প্রথম সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে (টিকটক) পরিচয় হয়। পরে দেখা-সাক্ষাত হয়। এর মধ্যে আমাদের মাঝে ঘনিষ্টতা বাড়ে। পরে আমাদের সম্পর্ক গড়ায় প্রেমে। বিয়েতে আমাদের কারও পরিবারই রাজি ছিল না। আমরা পরস্পরের পরিবারকে বুঝিয়েছি। পরে তারা বিয়েতে রাজি হন। গত ১৭ ফেব্রুয়ারি বিয়ের জন্যই ইফহা বাংলাদেশে আসে।’

ইফহা বলেন, ‘আমি খুবই খুশি শামীমকে পেয়ে। ও খুবই ভালো মনের মানুষ। আমরা সিঙ্গাপুর যাবো। ওখান থেকে ইন্দোনেশীয়া বেড়াতে যাবো বাবা-মায়ের কাছে।’

শেয়ার করুন-

মন্তব্য করুন

Protidiner Bangladesh

সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি

প্রকাশক : কাউসার আহমেদ অপু

রংধনু কর্পোরেট, ক- ২৭১ (১০ম তলা) ব্লক-সি, প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড) ঢাকা -১২২৯

যোগাযোগ

প্রধান কার্যালয়: +৮৮০৯৬১১৬৭৭৬৯৬ । ই-মেইল: protidinerbangladesh.pb@gmail.com

বিজ্ঞাপন (প্রিন্ট): +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ । ই-মেইল: pbad2022@gmail.com

বিজ্ঞাপন (অনলাইন): +৮৮০১৭৯৯৪৪৯৫৫৯ । ই-মেইল: pbonlinead@gmail.com

সার্কুলেশন: +৮৮০১৭১২০৩৩৭১৫ । ই-মেইল: pbcirculation@gmail.com

বিজ্ঞাপন মূল্য তালিকা